আমাদের অর্থনীতি পত্রিকার সোনারগাঁ প্রতিনিধিকে হত্যার হুমকি বাড়ি ভাঙচুর

গোলাম নবী খোকন, মতলব উত্তর প্রতিনিধি :

পূর্বঘটনার সূত্র ধরে দৈনিক আমাদের অর্থনীতি পত্রিকার সোনারগাঁ প্রতিনিধি মাজহারুল রাসেলের বাড়িতে হামলা ও ভাঙচুরে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

স্থানীয় সন্ত্রাসী ও উপজেলা যুবলীগের মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক সম্পাদক মাসুম বিল্লাহ ও তার সহযোগীর বিরুদ্ধে। অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, মাসুম বিল্লাহ তার সহযোগি ইমনসহ ৫, ৬ জন অজ্ঞাত সন্ত্রাসীরা স্থানীয় সাংবাদিক মাজহারুল রাসেলের বাড়ির গেইট ভেঙ্গে বাড়ির ভিতরে প্রবেশ করে বারান্দার গেইট ভাঙচুর করেন ও অকথ্য ভাষায় গালাগালি করেন।

বারবার গেইটের মধ্যে বিকট শব্দ হওয়ার কারণে এলাকার লোকজন চলে আসে, পরে সন্ত্রাসীরা মাজহারুল রাসেলকে গুম ও হত্যা করে ফেলার হুমকি দিয়ে চলে যায়।

gif maker

উক্ত ঘটনার মাজহারুল রাসেল সোনারগাঁ থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। উল্লেখযোগ্য বিগত কয়েক মাস আগে ডিশ ব্যবসায়ী মাসুদকে অপহরণ করে তার ব্যক্তিগত গাড়ি ও নগদ বিশ লক্ষ টাকা দাবি করে মাসুম বিল্লাহ ও তার সহযোগিরা।

উক্ত ঘটনা আমাদের অর্থনীতি পত্রিকার সোনারগাঁ প্রতিনিধি সাংবাদিক মাজহারুল রাসেল ও দৈনিক বিজনেস বাংলাদেশ পত্রিকার সাংবাদিক ফারুকুল ইসলাম ঐ ডিশ ব্যবসায়ী মাসুদকে পুলিশের এস আই রুস্তমের মাধ্যমে উদ্ধার করেন।

পরে থানায় উভয় পক্ষ আপোষ মীমাংসার মাধ্যমে শেষ করেন। সন্ত্রাসী মাসুম বিল্লার সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের ঘটনা বিভিন্ন পত্র-পত্রিকায় আসে।

উক্ত ঘটনার জের সন্ত্রাসী মাসুম বিল্লাহ রাস্তা ঘাটে নানা ভাবে গালাগালিসহ হুমকি প্রদান করে আসতো সাংবাদিক মাজহারুল রাসেল কে। তারপরও সাংবাদিক মাজহারুল রাসেল সন্ত্রাসী মাসুম বিল্লাহর ভয়ে চুপ করে থাকতো।

থানায় অভিযোগ করার মতো সাহস পায়নি সাংবাদিক মাজহারুল রাসেল। (৮ এপ্রিল) বুধবার রাত সাড়ে আটটার সময় অজ্ঞাত ব্যাক্তি সাংবাদিক মাজহারুল রাসেলের বাড়ির গেইটের সামনে সিগারেট খাওয়াতে, সাংবাদিক জানতে চায় এই করোনা ভাইরাসের সময় এলাকায় লকডাউন চলছে এই সময় আপনি এইখানে সিগারেট খাচ্ছেন। আপনি এখান থেকে চলে যান। উক্ত ব্যক্তি রাসেলকে দেখে নিবে বলে ছলে যায়।

কিছুক্ষণ পর মাসুম বিল্লাহ ও তার দলবল নিয়ে সাংবাদিক মাজহারুল রাসেলের বাসায় হামলা চালায়। এই বিষয়ে রাতেই সাংবাদিক মাজহারুল রাসেল ফোনে নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার জায়েদুল আলম ও স্থানীয় সংসদ সদস্য লিয়াকত হোসেন খোকার কাছে এর বিচার চাই।

You might like