আমরা যাদের ভিন্ন চোখে দেখি মহামারীতে তারাই প্রকৃত মানুষ

আল আমিন ছৈয়াল :

মানবজাতির জন্য এলিয়েন বা যুদ্ধ নয় সব চেয়ে বড় শত্রু নাম হচ্ছে ভাইরাস” মৃত ব্যক্তির জন্য নয় আপনারা আমরা ” কবর খুঁড়ে রাখতেছি জীবিত  ব্যক্তির জন্য।

এর জন্য দায়ী আমরাই পৃথিবীর মানুষ” আমরা যাদেরকে নিয়ে সমালোচনা করে আসছি ঠিক তারাই আজ এই করোনা মহামারীতে এখন আমাদের পাশে। আমি বলছিলাম পুলিশ ডাক্তার সাংবাদিক স্বেচ্ছাসেবী ভাইদের কথা।

কোন এক সময় আমরা পুলিশ ভাইদের গুন্ডা বলে ডাক্তার। ডাক্তার ভাইদের বলতাম কসাই। সাংবাদিক ভাইদের বলতাম টাকার জন্য নাকি ভুল সংবাদ প্রকাশ করে থাকে।

স্বেচ্ছাসেবী যুবক ভাইয়েরা যারা আছেন তাদের কে বলতাম টোটো কোম্পানীর ম্যানেজার। অথচ তারাই আজ নিজের জীবনের মায়া না করে মানুষের কল্যানে কাজ করে যাচ্ছে। তারাই এখন ঘর ছেড়ে পরিবার ছেড়ে আমাদের পাশে” মানুষের সেবায় নিয়েজিত রয়েছেন।

ইচ্ছে করলে পুলিশ ঘরে চলে যেতো পারতো। ডাক্তার নিজেকে নিয়ে ব্যস্ত থাকতে পারতো।  সাংবাদিক ভাইয়েরা টানা ছুটি যেহেতু পেয়েছে তারাও কাজ না করে  নাকে তেল দিয়ে ঘুমাতে পারতো।

আর স্বেচ্ছাসেবী যুবক ভাইয়েরাও ঘরে বসে আড্ডা দিতে পারতো। কিন্তু না, তারা তা করেননি। জাত” ধর্ম ভুলে গিয়ে দেশের এই সংকটময় মুহুর্তে ঝাঁপিয়ে পরে আছে দেশের জন্য, মানুষের জন্য।

আমি বীর শহীদ শ্রদ্ধেয় সালাম বরকত জব্বার কে দেখিনি, দেখেছি তাদের দেওয়া আমার মায়ের ভাষা” আমি অপেক্ষায় আছি ”  পুলিশ, ডাক্তার, সাংবাদিক ও স্বেচ্ছাসেবী ভাইদের অনুপ্রেরণা খুঁজে পাবে আমাদের ভালোবাসা” ফিরে পাবো কাধে কাধ মিলিয়ে অবিরাম পথ চলা।

শ্রদ্ধা-ভালোবাসায় কৃর্তজ্ঞতা জানাই তাদের প্রতি যারা এই কঠিন সময়ে এসেও জীবনের ঝুঁকি নিয়ে মানব সেবা করে চলেছেন। এসব ডাক্তার পুলিশ সাংবাদিক”স্বেচ্ছাসেবী ভাইদের জন্য আমার অফুরন্ত ভালোবাসা।

কারণ আমরা এতদিন যাদেরকে ভিন্ন চোখে দেখতাম তারাই আজ এই মহামারীতে মানুষের কল্যানে কাজ করে প্রকৃত মানুষের পরিচয় দিয়েছেন। বেঁচে থাকুক মানবতা, বেঁচে থাকুক মানুষের প্রতি মানুষের ভালোবাসা।

(মানুষ কে সেবা করার নাম, ই মানুষ)

পরিচিতি: আল আমিন ছৈয়াল।
প্রবাসী বিষয়ক সম্পাদক :
সাহিত্য মঞ্চ চাঁদপুর।

You might like