নবীগঞ্জে গৃহবধূর গলাকাটা লাশ উদ্ধার

 

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি :

হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলার পল্লীতে ছালেমা বেগম (৪৫) নামের এক গৃহবধূর গলাকাটা লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

রবিবার ভোরে উপজেলার করগাঁও ইউনিয়নের করগাঁও গ্রামস্থ নিজ বসত ঘর থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়। নিহত ছালেমা বেগম ওই গ্রামের মিলন মিয়ার স্ত্রী।

যেখানে ঈদের আমেজ থাকার কথা সেখানে আজ নেমে এসেছে শোকের ছায়া। এ ঘটনায় সন্দেহভাজন হিসেবে কয়েকজনকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে বলে পুলিশ সূত্রে জানা গেছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, মিলন মিয়ার দু’টি বাড়ি রয়েছে। তিনি অন্য বাড়িতে রাত্রী যাপন করেন।

আর ছালেমা বেগম প্রতিদিনের ন্যায় মেয়ে শান্তা বেগমকে নিয়ে একা বাড়িতে ঘুমান। রবিবার ভোরে মেয়ে শান্তা বেগমের চিৎকার শুনে ছুটে আসেন আশপাশের লোকজন। তারা গলা কাটা অবস্থায় ছালেমা বেগমের লাশ দেখতে পান। পরে পুলিশকে খবর দিলে নবীগঞ্জ থানার এস আই মোঃ সাঈদসহ একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশের সুরতহাল রিপোর্ট তৈরি করেন। পরে লাশটির ময়নাতদন্তের জন্য হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করেন।

এ ঘটনায় তাৎক্ষণিক ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন নবীগঞ্জ-বাহুবল সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার পারভেজ আলম চৌধুরী ও নবীগঞ্জ থানার ওসি মোঃ আজিজুর রহমান।

নবীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আজিজুর রহমান বলেন, সহকারী পুলিশ সুপারসহ আমরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি, খুবই নির্মমভাবে মহিলাকে হত্যা করা হয়েছে, কয়েকজনকে সন্দেহভাজন হিসেবে জিজ্ঞাসাবাদ চলছে, অবশ্যই খুব দ্রুত এই হত্যাকাণ্ডের রহস্য উদঘাটন করা হবে।

You might like