মঠবাড়িয়ার ফয়সাল জোমাদ্দারকে জনপ্রতিনিধি হিসেবে পাশে চায় এলাকাবাসী

মেহেদী হাসান (শাওন) হাওলাদার :

মঠবাড়িয়া উপজেলার কৃতি সন্তান ফয়সাল জোমাদ্দারকে জনপ্রতিনিধি হিসেবে পাশে চায় এলাকাবাসী।

কোভিড-১৯ মহামারীর এই দুঃসময়ে দেশের অধিকাংশ পরিবার অসহায় জীবন যাপন করেন।আর সে দুঃসময়ে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়ে মানবতার দৃষ্টি স্থাপন করেন পিরোজপুর জেলার মঠবাড়িয়া উপজেলার কৃতি সন্তান প্রবাসী ও বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ফয়সাল জোমাদ্দার। মঠবাড়িয়া উপজেলার অন্যতম একটি ইউনিয়ন ১০নং হলতা গুলিশাখালী।

তিনি এই ইউনিয়নের স্থায়ী বাসিন্দা। করোনা প্রার্তুভাবে অসহায় সাধারণ মানুষের মাঝে সামাজিক দুরাত্ব বজায় রেখে নিত্য প্রয়োজনীয় খাবার সরবরাহ করেন। এছাড়া ভিবিন্ন সময়ে দুস্থ্ অসহায় মানুষের মাঝে নগদ অর্থ প্রদান সহ এই ইউনিয়নের মেধাবী অসহায় ছেলে-মেয়েদের মাঝে পড়াশুনার যাবতীয় সামগ্রী বিতরণ করেন। করোনা কালীন দেশের বাহিরে থাকায় এসকল কার্যক্রম তার পিতা মোঃআফজাল জোমাদ্দার ও তার আত্মীয়স্বজন এর মাধ্যমে বন্টন করেন।

তার সাথে যোগাযোগ করলে তিনি জানান, গুলিশাখালী একটি ইউনিয়ন না এটা আমার জন্মভূমি আমার আর একটি পরিবার।আমি এই পরিবারের সবাই কে নিয়ে ভাল থাকতে চাই।সুখ-দুঃখ ভাগাভাগি করে থাকতে চাই।এই দুঃসময়ে আমি কাছে না থাকতে পারায় আমি আন্তরিক ভাবে ব্যথিত। তবে,শিঘ্রই সৌদি আরব টু বাংলাদেশের ফ্লাইট চালু হবে আর আমি খুব শিঘ্রই দেশে ফিরবো।আমি প্রবাসে বসেও সব সময় ফোনে যতটা অসম্ভ যোগাযোগ রেখেছি।শুধু এই মহামারী নয় যে কোন বিপদে আপদে আমি পাশে থাকবো।

তার ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা জানতে চাইলে জানান, ইউনিয়ন বাসী চায় আমি তাদের জনপ্রতিনিধি হয়ে সর্বদা পাশে থাকি।তাই তাদের চাওয়া কে আমি পূর্ণতা দিতে আসন্ন ইউপি নির্বাচনে ১০নং হলতা গুলিশাখালীতে আমি চেয়ারম্যান পদ প্রার্থী হিসেবে অংশ নিয়ে ইউনিয়নের সার্বিক উন্নয়ন ও অসহায় মানুষের পাশে থাকতে চাই।সোনার বাংলার রুপকার দেশরত্ন শেখ হাসিনার ডিজিটাল মিশন ও ভিশনে আমিও একজন জনপ্রতিনিধি হয়ে কাজ করতে চাই।

এ ব্যাপারে এলাকা বাসীর মতামত জানতে চাইলে জানান, আমাদের ফয়সাল জোমাদ্দার একজন ভাল ও নীতিমান মানুষ।তিনি প্রবাসে বসেও আমাদের খোজ খবর রাখেন।শুধু এলাকাতে নয় সৌদিতে আমাদের এলাকার মানুষের বিপদে পাশে দাড়ান।আমরা তার মঙ্গল ও দীর্ঘায়ু কামনা করি।

০৫ সেপ্টেম্বর ২০২০ খ্রি. ২১ ভাদ্র ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১৬ মুহররম ১৪৪২ হিজরি, শনিবার

আমরা সংবাদের বস্তুনিষ্ঠতায় বিশ্বাসী, প্রিয় সময় গুজব প্রচার করে না

You might like