ধর্ষণচেষ্টার প্রতিশোধ নিতেই ‘২৫ কোপে’ হত্যা

নিউজ ডেস্ক :
কয়েক বছর ধরে অবৈধ সম্পর্কের জেরে যৌন নির্যাতনের শিকার হয়েছে এক নারী। এমনকি তাকে ধর্ষণের চেষ্টাও করা হয়েছে। অবশেষে এই নির্যাতন আর সইতে না পেরে কুপিয়ে মেরে ফেলে প্রতিশোধ নিয়েছেন ওই নারী। কিন্তু সেটা নেহাত এক বা দুই কোপ নই, টানা ২৫ বার ছুরিকাঘাত করে মেরেছেন তিনি।

ভারতীয় গণমাধ্যম জি নিউজের একটি প্রতিবেদনে এমনি তথ্য প্রকাশ করা হয়েছে। এ ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের মধ্যপ্রদেশের গুনায় এলাকায়। ভারতীয় কংগ্রেস থেকে বহিষ্কৃত নেতা ব্রজভূষণ শর্মার ওপর এতটাই রাগ ছিল ওই নারীর।

সম্প্রতি কংগ্রেস থেকে বহিষ্কৃত ওই নেতা রাত ১১টার দিকে ওই নারীর বাড়িতে যান। সেখানে কথা কাটাকাটির পর তাকে ধর্ষণের চেষ্টা করেন। এরপর ওই নারী কংগ্রেস নেতার উপর ছুরি নিয়ে ঝাঁপিয়ে পড়েন। টানা ২৫টি ছুরির কোপ মারেন তার শরীরে। ঘটনাস্থলেই সেই কংগ্রেস নেতার মৃত্যু হয়। খুন করার পর ওই নারী নিজেই পুলিশকে ফোন করে খবর দেন।

মৃত কংগ্রেস নেতার স্ত্রী অবশ্য ওই নারীকেই আসল দোষী বলে অভিযোগ করেছেন। তার দাবি, ব্রজভূষণকে নিজের প্রেমের জালে ফাঁসিয়েছিলেন ওই নারী। তার থেকে নিয়মিত টাকা-পয়সা, গয়না-গাটি নিতেন ওই নারী। কোনো কারণে ঝগড়া হওয়ায় তিনি তার স্বামীকে কুপিয়ে খুন করেন বলে অভিযোগ করেছেন ব্রজভূষণের স্ত্রী।

ওই নারীর স্বামী একজন শিক্ষক। তিনি বাড়িতে ছিলেন না। আর সেই সুযোগে কংগ্রেস নেতা তার বাড়িতে যান। পুলিশ জানতে পেরেছে- কয়েক বছর ধরেই ওই নারীর সঙ্গে কংগ্রেস নেতার অবৈধ সম্পর্ক ছিল। কিন্তু ঠিক কী কারণে ওই নারী তাকে খুন করেছে, তা এখনও পরিষ্কার নয়।

এই ঘটনায় পুলিশও রীতিমতো অবাক হয়েছে। কতটা ঘৃণা ও হিংসা ভেতরে জমে থাকলে একজন নারী পঁচিশবার কুপিয়ে কাউকে খুন করতে পারে! আপাতত আদালতের নির্দেশে পুলিশি হেফাজতে রয়েছেন ওই নারী। তার বিরুদ্ধে খুনের মামলা দায়ের করেছে পুলিশ।

আমরা খবরের বস্তুনিষ্ঠতায় বিশ্বাসী, সঠিক সংবাদ পরিবেশনই আমাদের বৈশিষ্ট্য

১৭ অক্টোবর ২০২০ খ্রি. ০১ কার্তিক ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৯ সফর ১৪৪২ হিজরি, শনিবার

You might like