পঞ্চগড়ে মাস্ক পড়তে অভিনব প্রচারণায় একদল তরুণ

 

এন এ রবিউল হাসান লিটন, পঞ্চগড় প্রতিনিধি:

পঞ্চগড় শহরে করোনার বিরুদ্ধে জনসচেতনতা সৃষ্টি করতে এবং সবাইকে মাস্ক পরতে উৎসাহিত করার জন্য এক অভিনব প্রচারণায় নেমেছে একদল তরুণ। বলছি হৃদয়ে গ্রামবাংলা ফাউন্ডেশনের স্বেচ্ছাসেবকদের কথা।

সংগঠনটির স্বেচ্ছাসেবকদের কারো হাতে রয়েছে মাস্কের প্যাকেট আর কারোর হাতে রয়েছে খাবার, আর কারো হাতে রয়েছে সাবান, আর এক তরুন হ্যান্ড মাইক দিয়ে করোনা ভাইরাস বিষয়ে নানা সচেতনতামূলক বানী প্রচার করছেন। যেসব রিক্সা ও ভ্যানচালকরা সঠিক নিয়মে মাস্ক পরে গাড়ি চালাচ্ছেন স্বেচ্ছাসেবকরা তাদের হাতে তুলে দিচ্ছে খাবার ও সাবান। উদ্দেশ্য একটাই করোনা ও মাস্ক বিষয়ে জনসাধারণকে সচেতন করা।

৭ এপ্রিল (বুধবার) এমন অভিনব প্রচারণা ও মাস্ক বিতরনণ অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন পঞ্চগড় জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার সাদাত সম্রাট। এসময় প্রধান অতিথি সবাইকে মাস্ক পরতে ও স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলার ব্যাপারে অনুরোধ করেন।

পঞ্চগড় শহরের বিভিন্ন জায়গায় রিক্সা, ভ্যানচালক ও দোকানদার এবং পথচারীদের মাঝে ৫০০০ মাস্ক বিতরন করল হৃদয়ে গ্রামবাংলা ফাউন্ডেশন। সংগঠনটির স্বেচ্ছাসেবকরা রিক্সা, ভ্যানচালক দোকানদার পথচারীদের মাঝে মাস্ক বিষয়ে সচেতনতা সৃষ্টি করেন এবং সঠিক নিয়মে মাস্ক পরার নিয়ম কানুনও শিখিয়ে দেন। এসময় স্বেচ্ছাসেবকরা রিক্সা, ভ্যানচালক থেকে শুরু করে শহরে আগত দুঃস্থ ও গরীব মানুষদের মাঝে খাবার, মাস্ক ও সাবান তুলে দেন।

সবাইকে মাস্ক পড়তে উদ্বুদ্ধ করতে এমন অভিনব প্রচারণায় নেমেছি বলে জানিয়েছেন সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম শান্তি।

মাস্ক বিতরন অনুষ্ঠানে জেলা আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক বিপেন চন্দ্র রায়, আওয়ামী লীগ নেতা জ্যোতিষ চন্দ্র রায় সহ জেলা ও উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতা কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

দেশে করোনা ভাইরাসের শুরু থেকেই গরীব ছিন্নমূল মানুষের মাঝে ত্রান সামগ্রী থেকে শুরু করে মাস্ক, হ্যান্ড স্যানিটাইজার ও ঔষধ পত্র সরবরাহ করে আসছিল ‘হৃদয়ে গ্রামবাংলা ফাউন্ডেশন’।

You might like