কুমিল্লায় র‌্যাবের অভিযানে ১১ চাঁদাবাজ আটক

গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-১১, সিপিসি-২ এর একটি আভিযানিক দল ১৯ জুলাই সোমবার দুপুরে কুমিল্ল¬া জেলার সদর দক্ষিণ থানাধীন জাঙ্গালিয়া বাসস্ট্যান্ড এলাকায় বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে। অভিযানে পরিবহনের চাঁদাবাজ চক্রের ৬ জন সক্রিয় সদস্যকে গ্্েরফতার করতে সক্ষম হয়। গ্রেফতারকৃতরা হলো ১। কুমিল্লা জেলার সদর দক্ষিণ থানার শাকতলা গ্রামের মোঃ রুকন মিয়ার ছেলে মোঃ স্বপন মিয়া (২০), ২। চাঁদপুর জেলার কচুয়া থানার আসাদপুর গ্রামের কামাল হোসেনের ছেলে মোঃ জিহান হোসেন (২০), ৩। কুমিল্লা জেলার সদর দক্ষিণ থানার শাকতলা গ্রামের মৃত ওহিদ মিয়ার ছেলে মোঃ আকাশ (১৯), ৪। নারায়ণগঞ্জ জেলার রুপগঞ্জ থানার নোয়াপাড়া গ্রামের মৃত মেহের আলীর ছেলে মোঃ আব্দুল আলী (৩২), ৫। কুমিল্লা জেলার কোতয়ালি থানার গোবিন্দপুর গ্রামের পরদেশ আহম্মেদ ভূইয়ার ছেলে মোঃ তৌফিকুর রহমান মারুফ @ আবির (১৯) ও ৬। কুমিল্লা জেলার সদর দক্ষিণ থানার নিশ্চিন্তপুর বাগমারা গ্রামের মোঃ মোবারকের ছেলে মোঃ আলমগীর (২০)। এ সময়ে তাদের কাছ থেকে চাঁদা আদায়ের ৬টি ভূয়া রশিদ বইসহ চাঁদা আদায়ের ৬ হাজার ৫৯০ টাকা উদ্ধার করা হয়।

 

অন্যদিকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-১১, সিপিসি-২ এর একটি আভিযানিক একই দিন দুপুরে কুমিল্ল¬া জেলার কোতয়ালি থানাধীন শাসনগাছা বাসস্ট্যান্ড এলাকায় পৃথক আরেকটি অভিযান পরিচালনা করে। উক্ত অভিযানে পরিবহনের চাঁদাবাজ চক্রের ২ জন সক্রিয় সদস্যকে গ্্েরফতার করে। গ্রেফতারকৃতরা হলো ১। কুমিল্লা জেলার কোতয়ালি থানার শাসনগাছা মধ্যপাড়া গ্রামের মৃত আব্দুল বারেক এর ছেলে মোঃ রুবেল (৩১), ২। কুমিল্লা জেলার কোতয়ালি থানার শাসনগাছা গ্রামের শাহআলম এর ছেলে মোঃ রনি (৩৩)। এ সময়ে তাদের কাছ থেকে চাঁদা আদায়ের ২টি ভূয়া রশিদ বইসহ চাঁদা আদায়ের ৪ হাজার ৩শ’ ২০ টাকা উদ্ধার করা হয়।

 

সর্বশেষ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-১১, সিপিসি-২ এর একটি আভিযানিক দল গতকাল দুপুরে কুমিল্ল¬া জেলার বুড়িচং থানাধীন ভরসার বাজার এলাকায় পৃথক অভিযান পরিচালনা করে। উক্ত অভিযানে পরিবহনের চাঁদাবাজ চক্রের ৩ জন সক্রিয় সদস্যকে গ্্েরফতার করে সক্ষম হয়। গ্রেফতারকৃতরা হলো ১। কুমিল্লা জেলার বুড়িচং থানার ভবানীপুর গ্রামের মৃত আব্দুল জুলহাস মিয়ার ছেলে মোঃ ওহিদ মিয়া (৫০), ২। কুমিল্লা জেলার বুড়িচং থানার ইছাপুর গ্রামের মৃত হাজী আসমত আলীর ছেলে আলমগীর হোসেন (৩৫) ও ৩। কুমিল্লা জেলার বুড়িচং থানার ইছাপুর গ্রামের মৃত তফাজ্জল হোসেন এর ছেলে মোঃ আমির হোসেন (৪০)। এ সময় তাদের নিকট থেকেও চাঁদা আদায়ের ৩টি ভূয়া রশিদ বইসহ চাঁদা আদায়ের নগদ ৮ হাজার ২শ’ ৬০ টাকা উদ্ধার করা হয়।

প্রাথমিক অনুসন্ধান ও গ্রেফতারকৃত আসামীদেরকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায় যে, তারা দীর্ঘদিন যাবৎ সাধারণ পরিবহন ড্রাইভারদের ভয়-ভীতি দেখিয়ে তাদের নিকট থেকে নিয়মিত চাঁদা আদায় করে আসছিল। এ বিষয়ে গ্রেফতারকৃত আসামীদের বিরুদ্ধে কুমিল্লা জেলার সংশ্লিষ্ট থানায় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। পরিবহন চাঁদাবাজমুক্ত করতে র‌্যাবের অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে জানিয়েছেন র‌্যাব-১১, সিপিসি-২, কুমিল্লা’র উপ-পরিচালক (কোম্পানি অধিনায়ক) মেজর মোহাম্মদ সাকিব হোসেন।

এএমএসএইচ

You might like